টেক টিপস

e porcha ( ই পর্চা ) eporcha gov bd আবেদন, খতিয়ান ডাউনলোড ও মালিকানা যাচাই

বাংলাদেশ গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ কর্তৃক প্রকাশিত ভূমি মন্ত্রণালয় ওয়েবসাইটের মাধ্যমে খতিয়ান ও মাপ সেবা দেওয়া হচ্ছে বাংলাদেশের সকল নাগরিককে। এখন থেকে বাংলাদেশের যেকোনো নাগরিক অনলাইনের মাধ্যমে ভূমি মন্ত্রণালয়ের সকল ধরনের সেবা নিতে পারবে। যার মধ্যে বিশেষভাবে অসংখ্য মানুষ প্রতিদিন গুগলে অনুসন্ধান করে ই-পর্চা ডাউনলোড করার জন্য।

তাই আজকে আপনাদের এই পোষ্টের মাধ্যমে জানাব কিভাবে ই পর্চা ডাউনলোড করবেন ও ই পর্চা আমাদের কি কাজে লাগে। জমি সংক্রান্ত ভূমি মন্ত্রণালয় তাদের ওয়েবসাইটে কয়েকটি শাখা তৈরি করেছে যেগুলো হলো ভূমি সেবা, ভূমি সেবা ফরম, ডিজিটাল গার্ড ফাইল, নাগরিক কর্নার ও অভিযোগ। অন্যদিকে আরো পাবেন খতিয়ান অনুসন্ধান, নাগরিক লগইন, অফিস লগইন ও সাপোর্ট টিকিট।

এই পর্যন্ত ই-পর্চা অর্থাৎ ভূমি মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে মোট সেবা গ্রহীতা ২৩৯২৬৫১, মোট ভিজিটর ৩৫৪১০৪৪, মোট ভিজিট ২১৯২২৮২৯ ও আজকের সেবা গ্রহীতা ২৫৯০৫ জন। জরুরী প্রয়োজনে বাংলাদেশের যেকোনো নাগরিক ১৬১২২ হটলাইনে কল করার মাধ্যমে সকাল ০৯ টা থেকে বিকেল ০৫ টার মধ্যেই সকল ধরনের সেবা নিতে পারবে। তাই চলুন দেখে নেওয়া যাক কিভাবে ই-পর্চা বা খতিয়ান সংগ্রহ করবেন।

e porcha

বর্তমানে বাংলাদেশের সকল মানুষ ঘরে বসে অনলাইনের মাধ্যমে জমি সংক্রান্ত যেকোন সমস্যার সমাধান খুঁজে পায় অনলাইনে। তাই মানুষ ই-পর্চা ডাউনলোড করার জন্য অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করে থাকে। তাই আপনি www.eporcha.gov.bd ওয়েবসাইটের মাধ্যমে খতিয়ান দেখা অথবা অনলাইন খতিয়ান কপি এর জন্য আবেদন করতে পারবেন।

যারা অনলাইনের মাধ্যমে জমির পর্চা ডাউনলোড করতে চান। তাদের জন্য রয়েছে বিশেষ সেবা। বাংলাদেশের সকল জায়গা জমির খতিয়ান নম্বর অনলাইনে খুঁজে বের করা যাবে। তাই আপনি যদি আপনার জমির ই পর্চা ডাউনলোড করতে চান। তাহলে আজই অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করে নিন।

ই পর্চা

বাংলাদেশ ভূমি মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে সর্বশেষ প্রকাশিত হওয়া জমির ম্যাপ, খতিয়ান, মৌজা ও অন্যান্য সকল তথ্য পাওয়া যাচ্ছে। তাই আপনার জমির ম্যাপ খতিয়ান ই-পর্চা ম্যাপ ডাউনলোড করতে পারবেন খুব সহজে।

eporcha gov bd

ভূমি মন্ত্রণালয়ের খতিয়ান ও ম্যাপ সেবা ওয়েবসাইটের মাধ্যমে আপনি আপনার জমির খতিয়ান, দাগ নাম্বার ও মালিকানা জেনে নিতে পারবেন। কিন্তু তার জন্য আপনাকে ভূমি মন্ত্রণালয়ের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে অ্যাকাউন্ট তৈরি করার মাধ্যমে আবেদন করতে হবে। তাই নিচে থেকে জেনে নিন কিভাবে ভূমি মন্ত্রণালয় অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে একাউন্ট তৈরি করবেন। অন্যদিকে আরও জেনে নিন ই পর্চা ডাউনলোড করার নিয়ম।

ই পর্চা কি? | eporcha

বাংলাদেশের অনেক মানুষের মনে প্রশ্ন জাগে ই পর্চা কি ও ই-পর্চা কি ধরনের সুবিধা দিয়ে থাকে। অনলাইন প্লাটফর্ম ব্যবহার করে একজন বাংলাদেশের নাগরিক জমির খতিয়ান ডাউনলোড করতে পারবেন ও তার মালিকানা যাচাই করে নিতে পারবেন। তাই বলা হচ্ছে ই-পর্চা একাউন্ট তৈরি করার মাধ্যমে, সেই ই-পর্চা অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করে অনলাইনের মাধ্যমে আপনি আপনার জমির পর্চা, খতিয়ান ও মালিকানা যাচাই করে নিতে পারবেন। এটি বাংলাদেশ ভূমি মন্ত্রণালয় কর্তৃক প্রকাশিত একটি অনলাইন ওয়েবসাইট সেবা।

ই পর্চার সুবিধা

প্রত্যেক জিনিসের রয়েছে সুবিধা ও অসুবিধা। তাই ভূমি মন্ত্রণালয় কর্তৃক প্রকাশিত এ ই পর্চা বের করার সহজ নিয়ম বাংলাদেশের সকল মানুষের জন্য অনেক সুবিধাজনক। কারণ পর্চা বের করার জন্য আমাদের বিভিন্ন ভূমি অফিসে গিয়ে দৌড়ানি বা হয়রানির সামনে পড়তে হয়। কিন্তু আপনি ঘরে বসে অনলাইনের মাধ্যমে ভূমি মন্ত্রণালয় ওয়েবসাইট এ আবেদন করে খুব সহজেই ই-পর্চা, আপনার মালিকানার তথ্য ও খতিয়ান বের করতে পারবেন।

e porcha gov bd

যতগুলো জমি রয়েছে সবগুলো জমির খতিয়ান এক জায়গায় অন্তর্ভুক্ত করা থাকে। যেখান থেকে আপনি আপনার জমির খতিয়ান নাম্বার ব্যবহার করতে পারবেন। নিচে থেকে জেনে নিন খতিয়ান বা পর্চা কত প্রকারের হয়ে থাকে।

খতিয়ান বা পর্চা কত প্রকারের হয়?

আপনাদের সবার সুবিধার্থে জানানো যাচ্ছে যে খতিয়ান বা পর্চা সাধারণত চার ধরনের হয়ে থাকে। তাই আপনাদের সকলের জানা সুবিধার্থে নিচে তুলে ধরা হলো কি ধরনের খতিয়ান পর্চা বাংলাদেশে পাওয়া যায়। নিচে থেকে পর্চা কত প্রকার তার তালিকা দেখে নিন।

  • সিএস খতিয়ান। (Cadastral Survey)
  • এসএ খতিয়ান । (State Acquisition Survey)
  • আরএস খতিয়ান। (Revisional Survey)
  • বিএস খতিয়ান/সিটি জরিপ। (City Survey)

অনলাইনে ই পর্চা

বাংলাদেশের যেকোনো নাগরিক অনলাইন ওয়েবসাইটের মাধ্যমে লগইন করে অনলাইনে ই পর্চা সেবা পেতে পারে। তাই আপনি যদি এখনও ভূমি মন্ত্রণালয় ওয়েবসাইট থেকে নাগরিক কর্নার অপশন ব্যবহার করে আবেদন করে না থাকেন। তাহলে খুব সহজেই আজকের এই পোস্ট থেকে ই-পর্চা অ্যাকাউন্ট তৈরি করে ফেলুন।

অনলাইন ই পর্চা

ই পর্চা লগইন

ই-পর্চা লগইন করার জন্য আপনাকে বাংলাদেশ ভূমি মন্ত্রণালয়ের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে লগইন করতে হবে। এই লিংকে www.eporcha.gov.bd প্রবেশ করে খুব সহজেই এই পর্চার জন্য লগইন করতে পারবেন। কিন্তু লগইন করার জন্য আপনাকে আগে মোবাইল নাম্বার দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করে একটি অ্যাকাউন্ট তৈরি করতে হবে। আপনি যদি আপনার ই-পর্চা অ্যাকাউন্ট পাসওয়ার্ড ভুলে যান। তাহলে খুব সহজেই আপনার ই-পর্চা একাউন্টের পাসওয়ার্ড পুনরুদ্ধার করতে পারবেন। কারণ ফরগট পাসওয়ার্ড দিলে আপনার ই-পর্চা অ্যাকাউন্ট নাম্বারে একটি ওয়ান টাইম পাসোয়ার্ড পাঠানো হবে। যে পাসওয়ার্ড প্রদান করার মাধ্যমে আপনি খুব সহজেই আপনার ই-পর্চা অ্যাকাউন্ট পাসওয়ার্ড পুনরুদ্ধার করতে পারবেন। নিচে থেকে আপনার ই-পর্চা একাউন্টে লগইন করুন।

eporcha gov bd login

eporcha gov bd login

ই পর্চার খতিয়ান

আমরা অনেকেই আছি যারা দাগ নম্বর বা খতিয়ান নাম্বার দিয়ে নিজের মালিকানা যাচাই করতে চাই। কিন্তু এর জন্য আমাদের সবাইকে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক প্রকাশিত ভূমি মন্ত্রণালয় ওয়েবসাইটের মাধ্যমে জমির মালিকানা যাচাই করতে হবে। তবে অনলাইনে খতিয়ান নাম্বার দিয়ে জমির মালিকানা যাচাই করার ক্ষেত্রে আপনাকে কিছু নির্ভুল তথ্য দিতে হবে। অর্থাৎ আপনি কোন বিভাগে বসবাস করছেন আপনার উপজেলার নাম কি আপনার মৌজা নাম্বার ও খতিয়ান নাম্বার সহ দাগ নাম্বার। নিচে আমরা একটি ছবি দিব যে ছবি ব্যবহার করে আপনি আপনার ই-পর্চা বা জমির মালিক অনুসন্ধান করতে পারবেন।

জমির দাগ নম্বর দিয়ে খতিয়ান নাম্বার বের করার নিয়ম

অনেকেই আছেন যারা জমির দাগ নম্বর সংগ্রহ করতে পেরেছেন কিন্তু খতিয়ান নাম্বার জানেন না। তাই অনলাইনের মাধ্যমে কিভাবে জমির দাগ ব্যবহার করে খতিয়ান নাম্বার বের করবেন সে সম্পর্কে জানতে চান। নিচে বিস্তারিতভাবে সকল তথ্য দিয়েছে আমরা। যেখান থেকে আপনি খুব সহজেই ই খতিয়ান যাচাই ও খতিয়ান অনুসন্ধান করতে পারবেন।

ই খতিয়ান যাচাই ও খতিয়ান অনুসন্ধান করার নিয়ম

eporcha apply

  • সর্বপ্রথম ভিজিট করুন https://eporcha.gov.bd/khatian-search-panel
  • বিভাগ নির্বাচনঃ আপনার নিজস্ব বিভাগ এখানে নির্বাচন করতে হবে।
  • জেলা নির্বাচনঃ আপনি কোন জেলার থাকেন তা এখানে নির্বাচন করুন।
  • খাতিয়ান টাইপ নির্বাচনঃ আপনি মুলত কোন ধরনের খতিয়ান বের করতে চান তা নির্বাচন করুন।
  • উপজেলা নির্বাচন করুনঃ আপনি কোন উপজেলার থাকেন তা এখানে নির্বাচন করুন।
  • মৌজা নির্বাচন করুনঃ আপনার মৌজার নাম কি তা নির্বাচন করুন।
  • খতিয়ান নংঃ আপনি যে জমির খতিয়ান টি বের করতে তা এখানে সিলেক্ট করুন।
  • দাগ নাম্বারঃ যদি আপনার জমির দাগ নাম্বারটি থেকে থাকে তাহলে সিলেক্ট করুন।
  • মালিকানা নামঃ মালিকানা নাম যদি থাকে তাহলে এখানে উল্লেখ করুন
  • পিতা/স্বামীর নামঃ পিতা/স্বামীর থাকলে তা এখানে লিখন।
  • ক্যাপচা কোড লিখুনঃ এখানে উল্লিখিত ক্যাপচা কোডটির অনুরুপ ফাঁকা জায়গাতে টাইপ করুন।
  • সকল তথ্য ঠিক থাকলে আপনি আপনার জমির সকল তথ্য পেয়ে যাবেন।

দাগ নম্বর ব্যবহার করে জমির মালিকের নাম দেখুন

বাংলাদেশের সকল নাগরিক অনলাইনের মাধ্যমে দাগ নম্বর দিয়ে জমির মালিকের নাম জেনে নিতে পারবেন। কিন্তু তার জন্য আপনাকে সর্বপ্রথম ই-পর্চা ওয়েবসাইটে লগইন করতে হবে। পরবর্তীতে সকল তথ্য দেওয়ার মাধ্যমে আপনি খুব সহজেই জমির আসল মালিক এর বিস্তারিত তথ্য সম্পর্কে জানতে পারবেন।

জমির ই পর্চা ডাউনলোড

অনেকেই আছেন যারা নিজের জমির অনলাইন ই পর্চা বাসায় থেকে ডাউনলোড করতে চান। উপরে আমরা ই-পর্চা সম্পর্কিত সকল তথ্য দিয়েছি। এখন আপনাকে জানাবো কিভাবে বাড়িতে বসে অনলাইনের মাধ্যমে আপনার জমির ই পর্চা কঁপি ডাউনলোড করবেন। আপনাকে আপনার জমির আসল পর্চা বের করে আনার জন্য আপনার নিকটস্থ ভূমি অফিস থেকে বের করে আনতে হবে। অন্যদিকে টাকার মাধ্যমে আপনার পর্চার অরিজিনাল কপি ভূমি মন্ত্রণালয় থেকে বের করে আনতে হবে।

সেক্ষেত্রে তারা ডাকযোগে আপনার পর্চার কপি পাঠিয়ে দিবে। অন্যদিকে আপনার যদি খতিয়ানের অনেক প্রয়োজন পড়ে তাহলে ভূমি মন্ত্রণালয় ওয়েবসাইট এর জরুরী সেবা সংগ্রহ করতে পারেন। আপনি যখন অনলাইনের মাধ্যমে জমির পর্চার জন্য আবেদন করবেন। তখন ফর মে জমির পর্চা পেতে চান টিক চিহ্ন দিয়ে নির্ধারণ করুন। পরবর্তীতে নির্দিষ্ট টাকা ব্যাংক থেকে পেমেন্ট করে অপেক্ষা করুন আপনার বাসায় ডাকযোগে জমির পর্চা পাঠিয়ে দেওয়া হবে।

e porcha Download

www eporcha gov bd

ই-পর্চা হটলাইন নাম্বার ও ইমেইল

ভূমি মন্ত্রণালয় ওয়েবসাইট এর কাছ থেকে জরুরি প্রয়োজনে সকল ধরনের সেবা হটলাইন নাম্বার এর মাধ্যমে জানতে পারবেন। এখানে আমরা সেই সকল বিস্তারিত তথ্য উল্লেখ করেছি।

ভূমি সেবা হটলাইন নাম্বার: ১৬১২২

সকাল 9 টা থেকে বিকাল 5 টা সময়ের মধ্যে সরকারি ছুটি ব্যতীত কল করার মাধ্যমে সকল ধরনের সেবা নিতে পারবেন।

ভূমি সেবা যোগাযোগের ইমেইল: eporcha@softbdItd.com

আশাকরি জমির ই পর্চা সম্পর্কিত সকল তথ্য পেয়েছেন আজকের এই পোস্টে। আপনাদের যদি কোন জিজ্ঞাসা থাকে তাহলে অবশ্যই কমেন্ট করে আমাদের জানাতে পারেন। আমরা যত দ্রুত সম্ভব আপনাকে সকল তথ্য দিয়ে সাহায্য করবো।

Tech Tips

টিপস নেট বিডি সকল ধরনের প্রয়োজনীয় বিষয় নিয়ে কাজ করে। বিভিন্ন ধরনের শিক্ষামূলক, কৃষি, প্রযুক্তি, বিনোদনমূলক, কুইজ প্রতিযোগিতা, পরীক্ষার রেজাল্ট। সকল ধরনের তথ্য দিয়ে আমরা সাহায্য করে থাকি। নতুন তথ্য পেতে আমাদের সাথেই থাকুন।

Related Articles

One Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button