ধর্ম

শবে কদর রাতের বৈশিষ্ট্য কি? লাইলাতুল কদর রাত্রি চেনার উপায়

ইসলামে শবে কদরের শ্রেষ্ঠ রজনী বলা হয়ে থাকে। কারণ এই রাত্রিতে কেউ যদি একবার শবে কদর পেয়ে যায়। তাহলে তার একরাত্রি এবাদত এর বিনিময় সে হাজার বছর ইবাদত করার সমান সওয়াব পাবে। তাই সকল মুসলিম বিশ্বের মানুষ রমজান মাসের শবে কদরের রাত্রে বিভিন্ন রকম ইবাদত করে থাকে। অনেকেই দোয়া, জিকির ও নফল ইবাদতের মাধ্যমে শবে কদরের রাত্রি জাগরণ করে। আবার অনেকে এ রাত্রিতে দান সদকা করে থাকে। ইসলামিক হাদিসের শবে কদরের রাতের বৈশিষ্ট্য উল্লেখ রয়েছে। কিন্তু নির্দিষ্ট কোন তারিখ শবে কদরের রাত্রি হিসেবে উল্লেখ নেই।

যার জন্য একজন মুসলিমকে শবে কদর রাতের বৈশিষ্ট্য গুলো লক্ষ্য রাখতে হবে। অন্যদিকে ইসলামিক হাদীসে বলা হয়েছে রমজান মাসের শেষ ১০ রমজানের বিজোড় রাত্রিগুলো শবে কদরের রাত্রি হতে পারে। অর্থাৎ রমজান মাসের বেজোড় রাত্রিগুলো হলো ২১, ২৩, ২৫, ২৭ ও ২৯ রমজানের রাত্রিগুলো। তাই একজন মুসলিম হিসেবে এ সকল রাত্রে শবে কদরের ইবাদত করা সবার জন্য অনেক প্রয়োজন।

শবে কদর রাত্রি চেনার উপায়

অনেকেই আছেন যারা শবে কদরের রাত্রি জাগরন করবেন কিন্তু জানতে চাচ্ছেন কিভাবে বুঝবেন শবে কদরের রাত্রি। অন্যদিকে আমাদের দেশে প্রচলিত রয়েছে ২৭ রমজান এর রাতে সবাই শবে কদরের রাত পালন করে থাকে। কিন্তু অনেকেই আছেন যারা লাইলাতুল কদর রাতের লক্ষণ গুলো জানেন না। তাদের জন্য আজকের এই পোস্টে উল্লেখ করেছি কিভাবে বুঝবেন শবে কদর রাত।

আরও দেখুনঃ শবে কদর নামাজের নিয়ম, নিয়ত ও কত রাকাত

শবে কদর কবে ২০২২ – জেনে নিন ইংরেজি, বাংলা ও আরবি তারিখ

শবে কদর রাতের বৈশিষ্ট্য

সকল মুসলমান রজনী বা লাইলাতুল কদরের রাত্রি জাগরন করে নফল ইবাদতের মাধ্যমে। অন্যদিকে অনেকেই আছেন যারা শবে কদর রাতের লক্ষণ গুলো জানতে চান। তাদের জন্য এখানে একটি তালিকা তৈরি করেছি যেখানে লাইলাতুল কদরের রাতের সকল লক্ষণ গুলো তুলে ধরা হয়েছে। ইসলামিক হাদিস থেকে জেনে নিন লায়লাতুল কদর রাতের সঠিক লক্ষণ গুলো।

শবে কদর

  • শবে কদর রাতটা হবে অনেকটা শান্ত।
  • রাতের আবহাওয়া হবে নাতিশীতোষ্ণ, অনেক বেশি ঠান্ডা বা অনেক বেশি গরম মনে হবে না।
  • রাতটি গভীর অন্ধকারে ছেয়ে যাবে না। অর্থাৎ এ রাতের অন্ধাকারচ্ছন্নতা অন্য রাতের তুলনায় কম হবে।
  • কিছুটা বৃষ্টি অথবা মেঘলা পরিবেশ হতে পারে।
  • মৃদুমন্দ বাতাস প্রবাহিত হতে থাকবে গোটা রাত জুড়ে।
  • সে রাতের সকালে হালকা আলোকরশ্মিসহ সূর্যোদয় হবে। সেদিন সকালের প্রথম সূর্যটি হবে পূর্ণিমার চাঁদের মতো।
  • রাসুল (সা.) যে আলামত বলেছেন, এই রাত শান্তিপূর্ণ মনে হবে। মানুষের কাছে শান্তি লাগবে।

লাইলাতুল কদর সম্পর্কে হাদিস

সবার সাথে শেয়ার করে শবে কদর রাতের বৈশিষ্ট্য জানিয়ে দিন সবাইকে। যাতে সবাই রমজান মাসের শেষ দশ এর বিজোড় রাতগুলোতে ইবাদত করে শবে কদর রাত আন্দাজ করতে পারে। লাইলাতুল কদর সম্পর্কিত বিস্তারিত তথ্য জানতে আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করুন।

Tech Tips

টিপস নেট বিডি সকল ধরনের প্রয়োজনীয় বিষয় নিয়ে কাজ করে। বিভিন্ন ধরনের শিক্ষামূলক, কৃষি, প্রযুক্তি, বিনোদনমূলক, কুইজ প্রতিযোগিতা, পরীক্ষার রেজাল্ট। সকল ধরনের তথ্য দিয়ে আমরা সাহায্য করে থাকি। নতুন তথ্য পেতে আমাদের সাথেই থাকুন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button